National University

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের রেজাল্ট ২০২৩ চেক (Session 2017-18) – nu.ac.bd/degree

ডিগ্রি ৩য় বর্ষের রেজাল্ট ২০২৩ সিজিপিএ সহ মার্কশিট ডাউনলোড

Rate this post

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের রেজাল্ট ২০২৩ চেক | ডিগ্রি ৩য় বর্ষের রেজাল্ট ২০২৩ সিজিপিএ সহ মার্কশিট ডাউনলোড –জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রি কোর্সে অধ্যয়নরত সকল শিক্ষার্থীদের নিয়ে আমরা কথা বলবো। বিশেষ করে তৃতীয় বর্ষের বার্ষিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে যারা ফলাফলের আশায় বসে আছে, সেসব ফলাফল প্রত্যাশীদের নিয়ে আজকে আয়োজন।

গত বছর ডিগ্রি ৩য় বর্ষ পরীক্ষার ব্যবহারিক পরীক্ষা শেষ হয় ৩০ নভেম্বর। এখনও ফলাফল দেয়ার ব্যাপারে আনুষ্ঠানিক কোনো ঘোষনা আসে নি। তাই, কেউই নিশ্চিতভাবে বলতে পারছে না ঠিক কবে নাগাদ ডিগ্রি ৩য় বর্ষের ফলাফল দেয়া হবে।

তবে একটা ধারণা পাওয়া যায় গত বছরের ডিগ্রি ৩য় বর্ষের ফলাফলের সময় দেখলে। গত বছর ডিগ্রি ৩য় বর্ষ শেষ হয় ২০ ডিসেম্বর, ২০২১ এ। এবং ফলাফল দেয়া হয় ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২২ সালে। তাই, খুব সহজেই ধারণা করা যায় যে, ফেব্রুয়ারি মাসের মাঝামাঝি সময়ের মধ্যে ফলাফল দেয়া হতে পারে। সবকিছুই নির্ভর করছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপর। তারা ফলাফলের নোটিশ দিলেই সবকিছু জানা যাবে। এর আগে নিশ্চিতভাবে কিছুই বলা যায় না।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের রেজাল্ট ২০২৩

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের রেজাল্ট ২০২৩ চেক (Session 2017-18) – nu.ac.bd/degree – তাই, আগেভাগে কিছু মন্তব্য না করে বরং আমরা অপেক্ষা করি এবং ফলাফল দেখার উপায় নিয়ে আলোচনা করি। যেহেতু, বছরে একবার ফলাফল দেখা হয়, ফলাফল দেখার উপায় বেশিরভাগেরই ঠিকভাবে মনে থাকে না। এজন্য যাতে কোনো সমস্যায় পড়তে না হয়সেজন্যই আমরা আজকের এই আয়োজন করেছি। ফলাফল দেখার পদ্ধতিগুলো এখানে ব্যাখ্যা করা হবে।

অন্যান্য বোর্ড পরীক্ষার মতই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ডিগ্রি পরীক্ষার ফলাফল মূলত দুই পদ্ধতিতে দেখা যায়। অনলাইনে এবং মোবাইল এসএমএসের মাধ্যমে। এই দুই পদ্ধতিই আমরা বিস্তারিত ধাপে ধাপে বর্ণনা করার চেষ্টা করবো।

অনলাইন ডিগ্রি ৩য় বর্ষের রেজাল্ট দেখার নিয়ম 

বাংলাদেশে বোর্ড পরীক্ষাগুলো অনুষ্ঠিত হয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অধীনে কাজ করা বোর্ডগুলোর নিয়ন্ত্রণে। ডিগ্রি পরীক্ষাগুলো মূলত অনুষ্ঠিত হয় কলেজগুলোতে। এবং নিয়ন্ত্রণে থাকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ই পরীক্ষার সূচি ঘোষণা করে এবং পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ করে। ফলাফল প্রকাশের বিষয়টাও জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনেই হয়। বিভিন্ন বর্ষের ডিগ্রি পরীক্ষার ফলাফল দেখার জন্য তাই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে।

ওখানে ফলাফলের অংশ থেকে ফলাফল চেক করতে হবে। মূলত জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় ফলাফল প্রকাশের নোটিশ দিলে, ফলাফল প্রকাশের দিন রাত ৮ টার পর ওয়েবসাইটে ফলাফল দেখা যায়। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে ফলাফল দেখার উইন্ডোতে ফলাফল দেখার জন্য যে ধাপগুলো অনুসরণ করতে হয় তা নিম্নে উল্লেখ করা হলো।

  • প্রথমেই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট www.nu.ac.bd তে প্রবেশ করতে হবে। এখানে ফলাফলের উইন্ডোতে যেতে হবে।
  • ওয়েবসাইটে প্রবেশের পর পরীক্ষার অপশন থেকে ডিগ্রি সিলেক্ট করতে হবে।
  • এরপর আসবে বছরের অপশন। ইয়ার অপশন থেকে ৩য় বর্ষ সিলেক্ট করতে হবে।
  • তারপর একটা বক্স আসবে রোল এবং রেজিষ্ট্রেশনের জন্য।
  • সেখানে নিজের রোল এবং রেজিষ্ট্রেশন নাম্বার দিতে হবে।
  • পাশাপাশি পরীক্ষার সালও উল্লেখ করতে হবে।
  • এরপর আপনাকে একটি ক্যাপচা পূরণ করতে হবে। এটি সাধারণত একটি সহজ যোগের অংক থাকে। এই যোগের অংকের ফলাফল বক্সে বসাতে হবে।
  • তারপর search result অপশনে ক্লিক করতে হবে।

কিছুক্ষণ অপেক্ষা করলে আপনার কাঙ্খিত ফলাফল পেয়ে যাবেন। এখানে প্রতিটা বিষয়ের গ্রেড পয়েন্ট এবং গ্রেড পয়েন্ট এভারেজ দেখানো হবে।

 এসএমএসের মাধ্যমে ডিগ্রি ৩য় বর্ষের ফলাফল দেখার নিয়ম

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় মোবাইল এসএমএসের মাধ্যমেও ফলাফল দেখার সুযোগ রেখেছে। যাদের মূলত ইন্টারনেট কানেকশনের সমস্যা আছেতারা এ পদ্ধতিতে ফলাফল দেখতে পারে। মোবাইল এসএমএসের মাধ্যমে ফলাফল দেখার সবচেয়ে বড় সুবিধা হচ্ছে যেকোন জায়গায়, যেকোন অবস্থায়, যেকোন মোবাইল দিয়ে ফলাফল দেখা যায়। এবং এতে কোনোরকম ইন্টারনেট কানেকশনের প্রয়োজন হয় না। তবে, ফলাফল দেখার জন্য নির্ধারিত ফরম্যাট অনুযায়ী এসএমএস পাঠাতে হবে। ধাপে ধাপে নিয়মটি বর্ণনা করা হলো

SMS এর মাধ্যমে ফলাফল দেখতে চাইলে, মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করুন NU,  তারপর DEG, এরপর রোল নাম্বার লিখুন।

উদাহরণঃ–   NU DEG 1010101 এর পর পাঠিয়ে দিন ১৬২২২ নাম্বারে।

ফিরতি এসএমএসে আপনার ফলাফল সহ বিস্তারিত পাঠিয়ে দেয়া হবে। তবে, ফরম্যাট ঠিকঠাক না থাকলে ফিরতি এসএমএসে ফলাফল দেখা যাবে না। তাই, ফরম্যাট এবং রোল নাম্বার সাবধানে ঠিকঠাক লিখতে হবে। এক্ষেত্রে সাধারণ এসএমএসের চার্জ কেটে রাখা হবে।

Mehebur Hasan Siam

My only passion is to be Successful Freelancer. I write Content about all Educational News and Information. I'm working on this Website since July 2021.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button